রানু মণ্ডলকে নিয়ে যা বললেন লতা মঙ্গেশকর

97

বিনোদন ডেস্ক: সুরসম্রাজ্ঞী লতা মঙ্গেশকরের ‘এক পেয়ার কা নাগমা হ্যায়’ গান গেয়ে রাতারাতি বিখ্যাত হয়ে গিয়েছেন রানু মণ্ডল। এরপর সেই গান সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভাইরাল হলে ভারতে রিয়েলিটি শোতে ডাক পান রানু। সেখানে তার গান শুনে তাকে নিজের ছবিতে গান গাওয়ার সুযোগ করে দেন হিমেশ রেশমিয়া।

হিমেশের ছবিতে হিমেশের সঙ্গে ‘তেরি মেরি’ শিরোনামে ডুয়েট গাইলেন রানু। সেই গানটিও রীতিমত ভাইরাল হয়ে যায়। এরপর থেকে আলোচনায় চলে আসেন রানু।

অথচ যার গান গেয়ে এত আলোচনায় এসেছেন রানু, সেই লতা মঙ্গেশকর কি রানুর কথা জানেন বা তার গান শুনেছেন? তাঁর কানেও পৌঁছেছিল এই খবর। রানুর জার্নির কথা শুনে স্বয়ং সুরসম্রাজ্ঞী লতা মঙ্গেশকর ভারতের গণমাধ্যমকে বলেছেন,‘যদি আমার নাম আর কাজে কারো মঙ্গল হয় তাহলে বুঝবো ভালো কপাল নিয়েই জন্মেছি, আমি ভাগ্যবতীই বটে।’

লতা আরও বলেন, আমি মনে করি শুধু অনুকরণ করে সাফল্যকে বেশিদিন বিশ্বাসযোগ্য ভাবে ধরে রাখা যায় না। উঠতি গায়ক-গায়িকারা আমার, কিশোরদার, রফি সাহাব, মুকেশ ভাইয়া কিংবা আশার গান গেয়ে সাময়িক স্টারডম পান ঠিকই, তবে এর স্থায়িত্ব বেশিদিনের নয়।

লতা বলেন, অনেকেই খুব সুন্দর করে আমার গান করেন। কিন্তু তাঁদের ক’জনকে পরবর্তী সময়ে লোকে মনে রাখে? আমার তো শ্রেয়া ঘোষাল আর সুনিধি চৌহান ছাড়া আর কারও কথা মনেই পড়ছে না।

নতুন প্রজন্মের গায়ক-গায়িকাদের পরামর্শ জানিয়ে লতা বলেন, ‘প্রবাদপ্রতিম শিল্পীদের গান অবশ্যই গাও। কিন্তু লোকে মনে রাখার মত নিজস্বতার প্রয়োজন রয়েছে। তা নাহলে লোকে কেন কাউকে মনে রাখবে?’