সিলেটের ৬ আসনে ৭৬ মনোনয়নপত্র জমা

23

ঢাকা সংবাদদাতা: একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে সিলেটের ৬টি আসনে বিএনপি, আওয়ামী লীগ, জাতীয় পার্টি, ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ, মুসলিম লীগসহ বিভিন্ন দলের ৭৬ জন প্রার্থী জেলা রিটার্নিং কর্মকর্তার কার্যালয়ে মনোনয়নপত্র দাখিল করেছেন। এবার সিলেট-২ আসনে মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন নিখোঁজ বিএনপি নেতা ইলিয়াস আলীর স্ত্রী ও তার ছেলে। আর সম্প্রতি বাংলাদেশ জামায়াতে ইসলামীর নিবন্ধন বাতিল করে নির্বাচন কমিশন প্রজ্ঞাপন জারি করায় এবার সিলেটের দুটি আসন থেকে ধানের শীষ প্রতীক নিয়ে লড়তে চান জামায়াতের দুই কেন্দ্রীয় নেতা।

এ লক্ষ্যে সিলেট-৫ আসনে বিএনপির প্রার্থী হয়ে মনোনয়নপত্র দাখিল করেছেন মাওলানা ফরিদ উদ্দীন চৌধুরী ও সিলেট-৬ আসনে বিএনপির প্রার্থী হয়ে মনোনয়নপত্র দাখিল করেছেন মাওলানা হাবিবুর রহমান। এরমধ্যে ফরিদ উদ্দিন জামায়াতের কেন্দ্রীয় কর্মপরিষদ সদস্য ও এ সিলেট-৫ আসনের সাবেক সংসদ সদস্য এবং মাওলানা হাবিবুর রহমান জামায়াতের কেন্দ্রীয় মজলিশে শুরার সদস্য ও সিলেট জেলা দক্ষিণের আমির।

সিলেট -১ আসনে বিএনপির প্রার্থী খন্দকার আব্দুল মুক্তাদির, ইনাম আহমদ চৌধুরী, ডা. শাহরিয়ার হোসেন চৌধুরী, আওয়ামী লীগের প্রার্থী ড. একে আব্দুল মোমেন, ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের রেদওয়ানুল হক চৌধুরী, ইসলামী ঐক্যজোট (আইওজে) প্রার্থী মুহাম্মদ ফয়জুল হক, ন্যাশনাল পিপলস্ পার্টির ইউসুফ আহমদ, জাতীয় পার্টির মাহবুবুর রহমান চৌধুরী, বাংলাদেশ বিপ্লবী ওয়ার্কার্স পার্টির উজ্জল রায়, বাসদের প্রণব জ্যোতি পাল, বাংলাদেশ মুসলিম লীগের আনোয়ার উদ্দিন বোরহানবাদী, বাংলাদেশ খেলাফত আন্দোলনের আলহাজ্ব মাওলানা নাসির উদ্দিন, স্বতন্ত্র শাহ জাহান মিয়া, বাংলাদেশ ইসলামী ফ্রন্টের নূরুল হক।

সিলেট-২ আসনে মনোনয়ন জমা দিয়েছেন বিএনপির তাহসিনা রুশদীর লুনা, আবরার ইলিয়াস, মোহাম্মদ আব্দুর রব, আছবির আহমদ, আওয়ামী লীগের আনোয়ারুজ্জামান চৌধুরী, শফিকুর রহমান চৌধুরী, জাতীয় পার্টির ইয়াহইয়া চৌধুরী, স্বতন্ত্র অধ্যক্ষ এনামুল হক সরদার, খেলাফত মজলিসের মুহাম্মদ মুনতাছির আলী, ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের আমির উদ্দিন, ন্যাশনাল পিপলস্ পার্টির মনোয়ার হোসাইন, বাংলাদেশ ন্যাশনালিস্ট ফ্রন্টের মোশাহিদ খান, গণ ফোরামের মোকাব্বির খান, জমিয়তে উলামায়ে ইসলাম বাংলাদেশের মাওলানা কাজী আমিন উদ্দিন। এ ছাড়াও মনোনয়ন ফরমে স্বতন্ত্রের শর্ত পূরন করেননি মুহিবুর রহমান ও মোহাম্মদ আব্দুর রব নামের দুই প্রার্থী।

সিলেট-৩ আসনে নির্বাচনের জন্য মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন বিএনপির সাবেক সংসদ সদস্য আলহাজ্ব শফি আহমদ চৌধুরী। এ ছাড়া আব্দুল কাইয়ুম চৌধুরী, আব্দুল হক (এম এ হক), ব্যারিস্টার আব্দুস সালাম, কামরুল হুদা জায়গীরদার, আওয়ামী লীগের মাহমুদ উস সামাদ চৌধুরী, খেলাফত মজলিসের দিলওয়ার হোসাইন, স্বতন্ত্র জুনায়েদ মোহাম্মদ মিয়া, ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের এম এ মতিন (বাদশা), জাতীয় পার্টির উসমান আলী, স্বতন্ত্র আব্দুল ওদুদ, জমিয়তে উলামায়ে ইসলাম বাংলাদেশের মাওলানা নজরুল ইসলাম, জাতীয় পার্টির তোফায়েল আহমদ, বাংলাদেশে খেলাফত মজলিসের হাফিজ মাওলানা আতিকুর রহমান, গণ ফোরামের মোকাব্বির খান, স্বতন্ত্র শেখ জাহেদুর রহমান মাছুম মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন।

সিলেট-৪ আসনে বিএনপির দিলদার হোসেন সেলিম, সামসুজ্জামান জামান, আওয়ামী লীগের ইমরান আহমদ, জমিয়তে উলামায়ে ইসলাম বাংলাদেশের আলহাজ্ব মাওলানা আতাউর রহমান, জাতীয় পার্টির এম ইসমাইল আলী আশিক, বাংলাদেশের বিপ্লবী ওয়ার্কার্স পার্টির মনোজ কুমার সেন, জাতীয় পার্টির আহমেদ তাজ উদ্দিন তাজ রহমান, ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের জিল্লুর রহমান মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন।

সিলেট-৫ আসনে মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন- বিএনপির মামুনুর রশীদ, মাওলানা ফরিদ উদ্দীন চৌধুরী, শরীফ আহমদ লস্কর, আওয়ামী লীগের হাফিজ মজুমদার, ইসলামী ঐক্যজোটের এম এ মতিন চৌধুরী, জমিয়তে উলামায়ে ইসলাম বাংলাদেশের উবায়দুল্লাহ ফারুক, ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের নুরুল আমিন, বাংলাদেশ মুসলিম লীগের শহিদ আহমদ চৌধুরী, স্বতন্ত্র আহমদ আল ওয়ালী, জাতীয় পার্টির সেলিম উদ্দিন, গণ ফোরামের বাহার উদ্দিন আল রাজী, স্বতন্ত্র ফয়জুল মুনির চৌধুরী।

সিলেট-৬ আসনে আওয়ামী লীগের নুরুল ইসলাম নাহিদ, বিএনপির ফয়সল আহমদ চৌধুরী, হোসেন খান হেলাল (হেলাল খান), মাওলানা হাবিবুর রহমান, মোহাম্মদ আব্দুর রকিব, বিকল্পধারা বাংলাদেশের শমসের মবিন চৌধুরী, জাতীয় পার্টির সেলিম উদ্দিন, ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের আজমল হোসেন, স্বতন্ত্র জাহাঙ্গীর হোসেন মিয়া, জমিয়তে উলামায়ে ইসলাম বাংলাদেশের আসআদ উদ্দিন আল মাহমুদ মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন।