করোনাভাইরাস ইন্টারাপশন ইন্সুরেন্স ক্লেইমে ক্ষুদ্র ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের পক্ষে ব্রিটেনে আদালতের রায়

476

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: বৃটেনে বীমা কোম্পানি সমূহের বিরুদ্ধে ‘করোনাভাইরাস ইন্টারাপশন ইন্সুরেন্স ক্লেইম‘ বিষয়ে ক্ষুদ্র ব্যবসায়িক প্রতিষ্ঠানগুলিকে সমর্থন জানিয়েছে সুপ্রীম কোর্ট। বিচারপতিরা বীমা কোম্পানির যুক্তি খারিজ করে দেয়ার পর বীমা দাতাদের বিলম্ব না করে তা পরিশোধের জন্য নির্দেশ দিয়েছেন।

ক্ষুদ্র ফার্মগুলি সুপ্রিম কোর্টের এই রায়কে অভিনন্দিত করছে। এতে বীমা কোম্পানি কমপক্ষে ১.২ মিলিয়ন পাউন্ড করোনাভাইরাস ইন্টারাপশন ইন্সুরেন্স ক্লেইম পরিশোধ করতে বাধ্য হবে। গতকাল শুক্রবার আদালত সুত্রে এ তথ্য জানা গেছে।

বিচারকরা গত গ্রীষ্মে আটটি বীমা সংস্থার সহায়তায় ফিনান্সিয়াল কন্ডাক্ট অথরিটি (এফসিএ) দ্বারা আনা একটি মামলার বিষয়ে বিভিন্ন নীতিমালা থেকে যৌক্তিক দাবিগুলির প্যারামিটার সেট করে দিয়েছেন।

গত সেপ্টেম্বরে গৃহীত হাইকোর্টের রায়কে ব্যাপকভাবে সমর্থিত হিসেবে দেখা হচ্ছে। ৩ লাখ ৭০ হাজার ক্ষুদ্র ফার্ম এতে উপকৃত হবে। বার, ক্যাফে, বিয়ে ব্যবস্থাপনা এবং বিউটি পার্লার সহ বিস্তৃত ব্যবসা প্রতিষ্ঠান যুক্তি দিয়েছিল, করোনাভাইরাস লকডাউনের কারণে ক্ষতির বিষয়ে বীমাপ্রাপ্তরা বীমা কোম্পানির ‘করোনাভাইরাস ইন্টারাপশন ইন্সুরেন্স ক্লেইম‘ প্রত্যাখ্যাত হলে তারা ধ্বংসের মুখোমুখি হয়েছেন।

বিশ্বের বৃহত্তম বাণিজ্যিক বীমা সংস্থা হিসকক্স, আরএসএ, কিউবিই, আর্জেন্টিনা, আর্ক এবং এমএস আমলিন সুপ্রিম কোর্টকে বলেছিল, অনেক ব্যবসায় ব্যাপক বিঘ্ন ঘটেনি। বীমা কোম্পানির যুক্তি প্রত্যাখ্যান করেছে আদালত। আইনী প্রক্রিয়াটি ইংল্যান্ড এবং ওয়েলসের সর্বোচ্চ আদালতে দ্রুততম পদ্ধতিতে (ফাস্ট ট্র্যাক) করা হয়েছিল।

প্রায় ৪০০ দাবিদারদের প্রতিনিধিত্বকারী হিসকক্স অ্যাকশন গ্রুপ (এইচএজি) এই রায়কে যুক্তরাজ্যের ব্যবসায়ের জন্য “ব্যাপক উত্সাহ জনক” বলে প্রশংসা করেছে।

তারা বলেছেন, অবশেষে রায়টির এই অর্থ হওয়া উচিত যে, আমাদের সদস্যদের পাশাপাশি সারা দেশের ব্যবসায়ীরা তাদের দেয়া বীমাটি পাবে।